কলেজের ভর্তি ফি জোগাড় করতে না পেরে ছাত্রীর আত্মহত্যা

ঢাকার ধামরাইয়ে নিজ কক্ষ থেকে সানজিদা আক্তার নামে সদ্য এসএসসি পাস করা এক ছাত্রীর গলায় ওড়না পেঁচানো ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ রোববার (১৩ সেপ্টেম্বর) বিকেলে উপজেলার নান্নার ইউনিয়নে পাঁচাল গ্রামের নিজ বাড়ি থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত সানজিদা আক্তার (১৭) ধামরাই উপজেলার নান্নার ইউনিয়নের পাঁচাল গ্রামের জালাল উদ্দিনের মেয়ে। সে জলসিং এলোকেশী উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী। নিহতের পরিবারের বরাত দিয়ে স্থানীয় ইউপি সদস্য

রফিকুল ইসলাম বলেন, হতদরিদ্র পরিবারে চার বোনের মধ্যে সানজিদা ছিল মেধাবী ছাত্রী। সদ্য বিজ্ঞান বিভাগ থেকে এসএসসি পাস করে কলেজে ভর্তির অপেক্ষায় ছিল। আজ রোববার সকালে ধামরাই সরকারি কলেজে ভর্তির কথা ছিল তার। কিন্তু ভর্তি ফি এর নির্ধারিত টাকা জোগাড় না হওয়ায় মায়ের সাথে মনোমালিন্য হয় সানজিদার। পরে দুপুরে কৃষক বাবা বাড়িতে ফিরে মেয়ে সানজিদার খোঁজ করলে তাকে পাওয়া যাচ্ছিল না। এসময় সানজিদার কক্ষের দরজা ভেতর থেকে বন্ধ পেয়ে অনেক

ডাকাডাকির পরও সাঁড়া মেলেনি। পরে দরজা ভেঙে কক্ষের আঁড়ার সাথে গলায় ওড়না পেঁচানো অবস্থায় তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। খবর পেয়ে পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়। এ ব্যাপারে ধামরাই থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) তন্ময় সাহা জানান, পরিবারের সাথে মনোমালিন্যতার জের ধরে ওই ছাত্রী গলায় ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করেছে। কোনো অভিযোগ না থাকায় প্রাথমিক সুরতহাল শেষে মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা দায়ের করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *